জাতীয়

জম্মু-কাশ্মীরে এনকাউন্টার

২২ এপ্রিল কাশ্মীরের সোপিয়ানের মালহুরা জানপুরা গ্রামে বেশ কয়েকজন জঙ্গি ঘাঁটি তৈরি করেছে বলে খবর পায় পুলিশ। নাশকতার ছকও কষছে তারা। গোপন সূত্রে পাওয়া খবরের ভিত্তিতে ২১ এপ্রিল থেকে নিরাপত্তা বাহিনী তল্লাশি চালাতে শুরু করে। গ্রামে পা রাখামাত্রই টনক নড়ে জঙ্গিদের। নিরাপত্তা বাহিনীকে লক্ষ্য করে গুলি চালাতে থাকে। পালটা জবাব দেয় নিরাপত্তা বাহিনী। চলে গুলির লড়াই। নিরাপত্তা বাহিনীর তরফে জানানো হয়, রাতভর গুলির লড়াইয়ের পর চারজন জঙ্গির দেহ পাওয়া গিয়েছে। এরপরে পুলিশের গোয়েন্দা সূত্রে খবর ছিল পায় পুলওয়ামার অবন্তীপুরার গোরীপুরায় বেশ কয়েকজন জঙ্গি  গা ঢাকা দিয়ে বসে রয়েছে। সেই অনুযায়ী ওই এলাকায় হানা দেয় যৌথ বাহিনী। শনিবার ভোররাতে ওই এলাকায় পা রাখামাত্রই জঙ্গিরা গুলি চালাতে শুরু করে। পালটা জবাব দেয় যৌথ বাহিনী। শুরু হয় দু’পক্ষের গুলির লড়াই। বেশ কিছুক্ষণে গুলির লড়াইয়ের পর ওই এলাকা থেকে দু’জন জঙ্গি এবং তাদের এক সহযোগীর দেহ উদ্ধার করা হয়। জম্মু-কাশ্মীর পুলিশ সূত্রে খবর, গুলির লড়াইতে নিকেশ করা হয়েছে তাদের। আর কেউ ওই এলাকায় এখনও গা ঢাকা দিয়ে বসে রয়েছে কি না, তা জানতে জারি তল্লাশি অভিযান। জঙ্গিরা কোন সংগঠনের সঙ্গে জড়িত তা এখনও জানা যায়নি। নিকেশ হওয়া ওই জঙ্গিদের কাছ থেকে প্রচুর পরিমাণ অত্যাধুনিক আগ্নেয়াস্ত্র বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button